কিভাবে ঘরে বসে ওয়াক্সিং করবেন?

কিভাবে ঘরে বসে ওয়াক্সিং করবেন?

ওয়াক্সিং অপরিহার্য। যদিও এখন অনেক পার্লার আছে যেখানে গিয়ে আপনি খুব সহেজেই এই কাজটি করতে পারেন। কিন্তু এটি কিভাবে করতে হয় তা জানা থাকলে, আপনার হাতে যদি সময়  না থাকে পার্লারে যাওয়ার অথবা পার্লারের থেকে খুব কম খরচেই আপনি ঘরে বসেই ওয়াক্সিং করতে পারেন।

বাড়িতে ওয়াক্সিং করলে অর্থ এবং সময় উভয়ই সঞ্চয় হয়। হ্যাঁ, এটি একটি ঝামেলাযুক্ত কাজ, তবে অনুশীলন এবং সঠিক প্রস্তুতির মাধ্যমে এটি আরও আরামদায়ক হয়ে উঠবে। এটি কিভাবে করতে হয় তা জানতে আমরা আপনাকে সাহায্য করব।

waxing, body

১. ওয়াক্সিং শুরু করার আগে কি কি মনে রাখা উচিত?

চুলের দৈর্ঘ্য পরীক্ষা করুন

ওয়াক্সিং করার আগে আপনার চুল এর একটি নির্দিষ্ট দৈর্ঘ্য বৃদ্ধি প্রয়োজন। অন্তত ১/৪ ইঞ্চি হতে হবে যাতে আপনি সহজেই অপসারণ করতে পারেন।

এছাড়াও, খুব ঘন ঘন ওয়াক্সিং আপনার ত্বক আলিঙ্গন করতে পারেন। তাই, পরের বার আপনি মোম করার সিদ্ধান্ত নেবেন, আপনার চুল সরানো যথেষ্ট যথেষ্ট হয়েছে কিনা তা পরীক্ষা করুন।

ময়শ্চারাইজিং করবেন না

ময়শ্চারাইজ করলে ওয়াক্সিং করতে সমস্যা হয়। তাই সবচেয়ে ভাল ওয়াক্সিং করার আগের রাতে আপনার ত্বককে ময়শ্চারাইজ করে রাখা যাতে ত্বক খুব শুষ্ক মনে না হয়।




স্বাস্থ্যবিধি বজায় রাখুন

ওয়াক্সিং করার আগে আপনার হাত, পা, মুখ এবং শরীরের অনন্যা জায়গা যেখানে ওয়াক্সিং করতে চান এবং ওয়াক্সিং এর সরঞ্জামগুলি ভালভাবে পরিষ্কার করা।

waxing

ওয়াক্সিং এর বিভিন্ন ধরন

চিনি ওয়াক্সিং

চিনি ওয়াক্সিং এর প্রাকৃতিক মূল উপাদান হল চিনি, লেবু, এবং গরম জল যা খুব সহজেই আমরা সংগ্রহ করতে পারি।

চিনি ওয়াক্সিং এর মাধ্যমে গোঁড়া থেকে চুল উঠানো যায় এবং বার বার একই জায়গা থেকে চুল উঠাতে পারবেন। এটি শরীরের যে কোন অংশে ব্যবহার করা যায়।

waxing, body




চকলেট ওয়াক্সিং

চকলেট যেমন খাদ্য হিসেবে তেমন ত্বক এর জন্যও ভালো। চকলেট ওয়াক্সিং এ কম ব্যথা পাওয়া যায় চিনি ওয়াক্সিং এর থেকে এবং এটি আপনার ত্বক এর জন্য ভাল এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বৈশিষ্ট্য এর কারনে। এর মধ্যে অন্যান্য উপাদান রয়েছে যেমন বাদাম তেল এবং গ্লিসারিন। এটি অন্যান্য ওয়াক্সিং এর তুলনায় ব্যয়বহুল।

ফল ওয়াক্সিং

ফলের ওয়াক্সিং এ বিভিন্ন ধরনের ফল ব্যবহার করা হয় যা আপনার ত্বককে আরও মসৃণ করে তোলে।

এটি এলার্জি সৃষ্টি করে না এবং সেন্সিতিভ ত্বকের জন্য খুব উপকারি।

waxing

৩. কিভাবে বাড়িতে ওয়াক্সিং করবেন?

প্রয়োজনীয় উপকরনঃ

  • ১ কাপ বাদামি চিনির
  • ২ টেবিল-চামচ লেবুর রস
  • ২ টেবিল চামচ জল
  • একটি পাত্র

যা করতে হবে

বাদামী চিনি এর সাথে লেবুর রস ও পানি যোগ করুন। মিশ্রণটি একটি পাত্রে কম আচে গরম করতে হবে। কিছুক্ষণ পর তাপ বাড়িয়ে ভালভবে নাড়তে হবে। যখন দেখবেন মিশ্রণটি সোনালী রং এর হয়ে গেছে এবং মধুর থেকে বেশি ঘন হয়েসে তখন আপনার ওয়াক্সিং ব্যবহার উপযোগী হয়ে গেছে।

৪. কিভাবে ঘরে বসে ওয়াক্সিং করবেন?

ওয়াক্সিং করার জায়গাগুলো ভালভাবে পানি দিয়ে পরিষ্কার করে নিতে হবে। তারপর নরম কাপড় দিয়ে মুছে নিব। ওয়াক্সিং এর মিশ্রণটি হাল্কা গরম করে নিতে হবে। ওয়াক্সিং করার জায়গাগুলোতে পাউডার লাগিয়ে নিব হাল্কা করে। এরপর মিশ্রণটি আপনার শরীরে লাগাতে হবে এবং ওয়াক্সিং স্ট্রিপ মিশ্রণটির উপর ভাল করে চেপে লাগিয়ে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে আপনার চুলের বৃদ্ধির বিপরীত দিকে টান দিয়ে স্ট্রিপটি তুলে ফেলতে হবে। একটি পরিষ্কার কাপড় কে ঠাণ্ডা পানিতে ডুবিয়ে ভিজিয়ে নিয়ে ওয়াক্সিং করার জায়গাগুলো মুছে ফেলতে হবে।

waxing

৫. ওয়াক্সিং করার সময় যে বিষয়গুলো মনে রাখতে হবে

  • ওয়াক্সিং করার আগে দেখে নিতে হবে যে আপনার ত্বকে কোন কাটা, পোড়া, এবং পিম্পল আছে কিনা।
  • আপনার ত্বকে যদি কোন এলার্জি এবং ইনফেকশন থাকে তাহলে ওয়াক্সিং না করাই ভাল। অবশ্যই চর্মরোগ বিশেষজ্ঞ এর পরামর্শ অনুসরণ করা উচিৎ।
  • ওয়াক্সিং এর মিশ্রণটি খুব বেশি গরম অথবা ঠাণ্ডা হওয়া যাবে না।
  • অবশ্যই চুল নির্দিষ্ট দৈর্ঘ্য বৃদ্ধি প্রয়োজন। তা না হলে সঠিকভাবে ওয়াক্সিং তো হবেই না বরং ত্বকের অনেক ক্ষতি হয়ে যেতে পারে।  
  • বার বার একই জায়গায় একাধিক বার ওয়াক্সিং করা যাবে না। এতে করে আপনার ত্বকে রেশ, লালচেভাব, এবং পুড়ে যেতে পারে।
  • যদি আপনি আপনার ত্বক পুড়িয়ে ফেলেন তাহলে ওয়াক্সিং বন্ধ করুন।
  • ওয়াক্সিং শেষে বরফ লাগিয়ে নিন।

ওয়াক্সিং করার জন্য সবসময় পার্লারে যাওয়া সম্ভব হয় না। তাই ঘরে বসে কিভাবে ওয়াক্সিং করবেন তা বিস্তারিত আলোচনা করা হল। এটি জানা থাকলে আপনাকে কার উপর নির্ভর করতে হবে না এবং আপনার সুবিধা মত যখন তখন ওয়াক্সিং করতে পারবেন।

কি করলে আমারা আমাদের পোস্ট আরও ভাল করতে পারি এই বিষয়ে অবশ্যই মতামত প্রকাশ করবেন।

আরও কি টাইপের পোস্ট বা ক্যটাগরি আমরা যুক্ত করতে পারি এই বিষয়ে যদি মতামত থাকে তাও ব্যাক্ত করার অনুরোধ রইল।

ধন্যবাদ।

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *